NSI কী? NSI কাজ কী? NSI কি কি পদ রয়েছে?

জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা যা এনএসআই – NSI নামে পরিচিত। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের প্রধান ও স্বাধীন একটি আন্তর্জাতিক গোয়েন্দা সংস্থা হলো এনএসআই – NSI। যারা NSI সম্বন্ধে সম্পূর্ণ ধারণা জানে তারা প্রত্যেকেই এনএসআই তে চাকরি করতে চায়। এনএসআই – NSI কী? এনএসআই – NSI পদের কাজ কি? NSI কত সালে কিভাবে প্রতিষ্ঠিত হয়? NSI কি কি পদ রয়েছে? এই সবগুলো বিষয় সম্বন্ধে আজকের আর্টিকেলে আমরা জানবো। যেন পরবর্তীতে NSI বা জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা তে কোন সার্কুলার প্রকাশ পেলে আমার ভিজিটররা সবার আগে সেখানে আবেদন করতে পারে। NSI যে বিজ্ঞপ্তি গুলো প্রকাশ হয়, সেখানে যেমন রয়েছে স্নাতক ডিগ্রী পাসের চাকরি ঠিক তেমনি রয়েছে এসএসসি এবং এইচএসসি পাশের চাকরি।

NSI এমন একটি পদ রয়েছে যেটি নাম হচ্ছে : ওয়াচার কনস্টেবল। যারা এসএসসি পাশ করেছে, তাদের জন্য সবচেয়ে জনপ্রিয় একটি পথ হচ্ছে ওয়াচার কনস্টেবল। কিন্তু দুর্ভাগ্যের কারণ হচ্ছে, অনেকে এনএসআই সম্বন্ধে সঠিক ধারণা না থাকার কারণে এ পদগুলোতে আবেদন করতে পারে না। আজকের এই আর্টিকেলে আমরা এনএসআই সম্বন্ধে বিস্তারিত সকল তথ্য জানবো এবং পরবর্তী আর্টিকেল গুলোতে আমরা জানবো এনএসআই যে পথ গুলো রয়েছে সে পথ গুলোর কাজ কি এবং সে পদগুলোতে আবেদন করার জন্য প্রত্যেক প্রার্থীকে কি কি যোগ্যতা থাকা প্রয়োজন।

 

NSI কী – এনএসআই কী? – What is NSI

জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের প্রধান ও স্বাধীন আন্তর্জাতিক গোয়েন্দা সংস্থা। এনএসআই এর প্রধান কার্যালয় বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় অবস্থিত। এনএসআই গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা কাউন্টার ইন্টেলিজেন্স ও বৈদেশিক গোয়েন্দা সম্পর্কিত ক্ষেত্রগুলোতে নেতৃত্বস্থানীয় ভূমিকা পালন করে। এনএসআই বাংলাদেশের অন্যান্য গোয়েন্দা সংস্থা যেমন : প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা মহাপরিদপ্তর, পুলিশের বিশেষ শাখা, সেনা গোয়েন্দা ও নেী গোয়েন্দার মধ্যে বৃহত্তম।

আপনি এসএসসি পাস করে সেনাবাহিনীর সৈনিক পদে বা নৌবাহিনীর নাবিক পদে আবেদন করার জন্য ঘুরছেন অথচ এসএসসি পাশে আপনি আবেদন করতে পারছেন ওয়াচার কনস্টেবলে। যেটাকে অনেকেই রাজকীয় চাকরি বলে আখ্যায়িত করে।

আরও পড়ুন : বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর নতুন প্রকাশিত নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২২ এ আবেদন করতে চাইলে অথবা এই বিজ্ঞপ্তির সম্পর্কে জানতে চাইলে আমাদের আর্টিকেলটি পড়ে আসতে পারেন – বাংলাদেশ সেনাবাহিনী বেসামরিক নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২২ ।}

 

NSI কাজ কী? – What is NSI work?

সংস্থাটির সরাসরি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী তত্ত্বাবধানে পরিচালিত হয়। বাংলাদেশ ছাড়াও বিশ্বের বিভিন্ন দেশে সংস্থাটির দপ্তর রয়েছে। পাশাপাশি যুগ্ম-পরিচালকের নেতৃত্বে বাংলাদেশের জেলা সমূহের স্থানীয় ইউনিট রয়েছে। বাংলাদেশের বৃহত্তম গোয়েন্দা সংস্থা হিসেবে এনএসআইয়ের প্রধান কার্যক্রম গুলোর মধ্যে মূলত বৈদেশিক সরকার, নির্দিষ্ট ব্যক্তি সংস্থা, রাজনৈতিক দল ও বিভিন্ন ধর্মীয় দল এবং কাউন্টার ইন্টেলিজেন্স সম্পর্কিত নানা তথ্য সংগ্রহ করে অর্থাৎ এনএসআই বা গোয়েন্দা সংস্থাটি রয়েছে সেটা যে কোন বৈদেশিক সরকারের অথবা নির্দিষ্ট কোন ব্যক্তির কিংবা নির্দিষ্ট কোন সংস্থার পেছনে গোয়েন্দার কাজ করবে অথবা কোনো রাজনৈতিক দল সম্পর্কে গোপন যত তথ্য রয়েছে সেগুলো তারা খুঁজে বের করবে। এটাই হচ্ছে এনএসএ প্রধান কাজ। হতে পারে কাজটা দেশে কিংবা দেশের বাহিরে।

 

NSI কত সালে প্রতিষ্ঠিত হয়? – What year was NSI established? – কিভাবে এনএসআই প্রতিষ্ঠিত হয়?

বাংলাদেশের স্বাধীনতা লাভের পর ১৯৭২ সালের ২৯ ডিসেম্বর, শেখ মুজিবুর রহমানের সরাসরি তত্ত্বাবধানে রেজুলেশনের মাধ্যমে জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা প্রতিষ্ঠিত হয়। প্রাথমিকভাবে বাংলাদেশ পুলিশে দক্ষ কিছু কর্মকর্তাদের নতুন এই বাহিনীতে নিয়োগ দেওয়ার মাধ্যমে সংস্থাটির কার্যক্রম শুরু হয়।

যেখানে আপনি এসএসসি পাশে পুলিশ কনস্টেবল পদে আবেদন করার জন্য খুঁজছেন, সেখানে পুলিশের দক্ষ কর্মকর্তাগণকে নিয়েই এনএসআই পরিচালিত হয়।

কেন আপনি এনএসআইতে আবেদন করবেন?

এনএসআই বাংলাদেশ এবং বাংলাদেশের বাহিরে বিভিন্ন কৌশলগত গুরুত্বপূর্ণ স্থানে গোয়েন্দা তথ্য সংগ্রহ করে। এছাড়া জাতীয় নিরাপত্তা পরিকল্পনা প্রণয়ন ও সীমান্ত এলাকার কৌশলগত নিরাপত্তা কার্যক্রম গ্রহণ করা এবং এ সংস্থাটির দায়িত্ব। পাশাপাশি এনএসআই বিভিন্ন সরকারি আধা-সরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত সংস্থার জনগণের জন্য প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা প্রশিক্ষণ প্রদান করে আসছে।

 

NSI কি কি পদ রয়েছে?

এখন দেখে নেয়া যাক এনএসআইতে পদ গুলো কি কি :

  • Director General – সচিব সমমান।
  • Director – অতিরক্ত সচিব।
  • Additional Director – যুগ্ম সচিব
  • Joint Director – যুগ্ম পরিচালক
  • Deputy Director – উপ পরিচালক
  • Assistant Director – সহকারী পরিচালক
  • Field Officer – মাঠ কর্মী
  • Junior Field Officer – জুনিয়র ফিল্ড অফিসার
  • Watcher constable – প্রহরী কনস্টেবল
  • Armed constable – সশস্ত্র কনস্টেবল

এই জুনিয়র ফিল্ড অফিসার পদ থেকেই এসএসসি এবং এইচএসসি পাসে আবেদন করা যায়। যেখানে এসএসসি এইচএসসি পাসে আপনি ডিফেন্স কিংবা অন্য কোন চাকরি করবেন, সেখানে একটি রাজকীয় এবং হচ্ছে সম্মানের সহিত একটি চাকরি আপনি পেয়ে যাচ্ছেন। পরবর্তী আর্টিকেলে আমরা জানবো : ওয়াচার কনস্টেবল পদে আবেদন করার জন্য একজন প্রার্থীর কি কি যোগ্যতা প্রয়োজন? কিভাবে আপনি সহজে ওয়াচার কনস্টেবল পদে চাকরি পাবেন? কিভাবে ওয়াচার কনস্টেবল পদে প্রস্তুতি নেবেন এবং ওয়াচার কনস্টেবল পদের কাজ কি?

তো এই ছিলো : NSI কী? NSI কাজ কী? NSI কি কি পদ রয়েছে? আর্টিকেল। যদি কোথাও বুঝতে সমস্যা হয় তাহলে কমেন্ট করে জানাবেন আমি অবশ্যই সাহায্য করার চেস্টা করবো।

Leave a Comment